ঢাকা সোমবার, ২৭ জুন ২০২২, ১৩ আষাঢ় ১৪২৯

প্রধানমন্ত্রীর দশটি বিশেষ উদ্যোগ বাস্তবায়নে সম্মিলিত প্রচেষ্টার আহবান এমপি রবির

কান্ট্রি ডেস্ক
১৪ জুন ২০২২ ১৫:৪০
আপডেট: ২৬ জুন ২০২২ ১৮:৫৮
প্রধানমন্ত্রীর দশটি বিশেষ উদ্যোগ বাস্তবায়নে সম্মিলিত প্রচেষ্টার আহবান এমপি রবির প্রধানমন্ত্রীর ১০টি উদ্ভাবনী উদ্যোগ বিষয়ে কর্মশালায় বক্তব্য রাখছেন বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি এমপি।

আব্দুর রহমান: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ১০ উদ্ভাবনী উদ্যোগ নিয়ে দিনব্যাপী প্রশিক্ষণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে। মঙ্গলবার সকালে সাতক্ষীরা সদর উপজেলা পরিষদ অডিটোরিয়ামে সদর উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে ও গভর্নেন্স ইনোভেশন ইউনটের সহযোগিতায় এ কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন সাতক্ষীরা ২ আসনের সংসদ সদস্য বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি। সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার ফাতেমা-তুজ-জোহরা’র সভাপতিত্বে কর্মশালায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সদর উপজেলা চেয়ারম্যান মো. আসাদুজ্জামান বাবু, বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মাহমুদ হাসান লাকী, সাতক্ষীরা প্রেসক্লাবের সভাপতি মমতাজ আহমেদ বাপী, সদর থানার অফিসার ইনচার্জ বিশ^জিৎ কুমার, সদর উপজেলা মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান কোহিনুর ইসলাম প্রমুখ। কর্মশালায় প্রধান অতিথি বীর মুক্তিযোদ্ধা মীর মোস্তাক আহমেদ রবি এমপি বলেন, ‘বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা বাস্তবায়নে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে। বর্তমান সরকারের প্রতিটি নির্বাচনী ইশতেহারেই দেশের সকল মানুষের মৌলিক অধিকার নিশ্চিত করাসহ দারিদ্র ও ক্ষুধা মুক্তি, বাসস্থান, শিক্ষা, চিকিৎসা ও সামাজিক নিরাপত্তার বিষয়কে অগ্রাধিকার প্রদান করা হয়েছে। এ লক্ষকে সামনে রেখে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী বিভিন্ন সময়ে প্রয়োজনে বিশেষ ১০টি উদ্যোগ গ্রহণ করেছেন, যার মধ্যে পল্লী সঞ্চয় ব্যাংক, আশ্রায়ণ প্রকল্প, ডিজিটাল বাংলাদেশ, শিক্ষা সহায়তা, নারীর ক্ষমতায়ন, সবার জন্য বিদ্যুৎ, কমিউনিটি ক্লিনিক ও শিশুর বিকাশ, সামাজিক নিরাপত্তা কর্মসূচি, পরিবেশ সুরক্ষা ও বিনিয়োগ বিকাশ অন্যতম। এই দশটি উদ্যোগে প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ ১০ উদ্যোগ নামে পরিচিত। এমপি রবি বলেন, প্রধানমন্ত্রীর ১০টি উদ্যোগ দেশকে বিশেষভাবে প্রভাবিত করছে। প্রধানমন্ত্রী ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়েছেন বলেই করোনাকালে দেশ স্থবির হয়ে যায়নি। অর্থনৈতিক সম্মৃদ্ধির বিকাশ ঘটাতে আগামী ২৫ জুন উদ্ধোন হতে যাচ্ছে স্বপ্নের পদ্মা সেতু। প্রধানমন্ত্রীর ১০টি উদ্যোগ বিশেষভাবে গরিব মানুষের জন্য উল্লেখ করে তিনি বলেন, এ উদ্যোগগুলো যদি আমরা যথাযথভাবে বাস্তবায়ন করতে পারি তবেই সোনার বাংলা গড়া সম্ভব হবে। এজন্য সম্মিলিতভাবে প্রচেষ্টার আহবান জানান তিনি’। কর্মশালায় সরকারি কর্মকর্তা, জনপ্রতিনিধি, সুশীল সমাজের নেতৃবৃন্দ, সাংবাদিক, এনজিও প্রতিনিধিসহ সংশ্লিষ্ট অংশগ্রহণকারীদের সমন্বয়ে গঠিত গ্রুপ ওয়ার্কের মাধ্যমে সমস্যা চিহ্নিতকরণ এবং প্রচারে করুনীয় সংক্রান্ত সুপারিশ প্রণয়ন ও উপস্থাপন করা হয়। সমগ্র অনুষ্ঠান সঞ্চালনা করেন সদর সহকারি কমিশনার (ভূমি) সুমনা আইরিন ও সদর উপজেলা সমাজসেবা অফিসার শেখ সহিদুর রহমান।

 

সর্বশেষ সবখবর