ঢাকা রোববার, ১৮ এপ্রিল ২০২১, ৪ বৈশাখ ১৪২৮

তালা সরকারি কলেজর ৪ শিক্ষার্থী মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ

কান্ট্রি ডেস্ক
০৫ এপ্রিল ২০২১ ২২:৫৫
আপডেট: ১৮ এপ্রিল ২০২১ ২০:৫২
তালা সরকারি কলেজর ৪ শিক্ষার্থী মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ সংগৃহিত

তালা প্রতিনিধি: চলতি শিক্ষা বর্ষে মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষায় অভাবনীয় সাফল্য অর্জন করেছে তালার ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান তালা সরকারি কলেজ। ২০২০ সালের মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষায় অত্র কলেজের ৪জন শিক্ষার্থী বিভিন্ন মেডিকেল কলেজে ভর্তির সুযোগ পেয়েছে। রোববার রাতে মেডিকেল কলেজ ভর্তি পরীক্ষার ফল প্রকাশের পর থেকে তালা সরকারি কলেজের শিক্ষক, শিক্ষার্থী, অভিভাবক, কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের মধ্যে আনন্দঘধন ছড়িয়ে পড়ে। তালা সরকারি কলেজের সহকারী অধ্যাপক জয়দেব ঘোষ জানান, ২০২০ সালের এইচএসসি পরীক্ষায় অত্র কলেজের ১৮২জন শিক্ষার্থী উত্তীর্ণ হয়। এঁদের মধ্যে বিজ্ঞান বিভাগের উত্তীর্ন ৩৬জন শিক্ষার্থী মেডিকেল, ইঞ্জিনিয়ারিং সহ বিভিন্ন বিষয়ে ভর্তির জন্য পরীক্ষায় অংশগ্রহন করে। রোববার রাতে মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশিত হয়। প্রকাশিত ফলাফলে দেখা গেছে, অত্র কলেজের মেধাবী শিক্ষার্থী তালা উপজেলার নাংলা গ্রামের ছায়ফুর রহমান’র কন্যা ফাতেমা-তুজ-জোহুরা রাজশাহী মেডিকেল কলেজে, একই উপজেলার ফতেপুর গ্রামের জুলফিকার আলী আকুঞ্জী’র ছেলে মো. হাসিবুর রহমান রংপুর মেডিকেল কলেজে, হাজরাকাঠি গ্রামের মো. লিয়াকত আলী’র ছেলে মো. ইমরান হোসেন ইমন খুলনা মেডিকেল কলেজে এবং ডুমুরিয়া উপজেলার বৈঠাহারা গ্রামের প্রভাষ চন্দ্র সানা’র ছেলে সজল কুমার সানা দিনাজপুর মেডিকেল কলেজে ভর্তির জন্য উত্তীর্ণ হয়েছে। অভাবনীয় এই ফলাফলের পর থেকে কলেজের শিক্ষক, শিক্ষার্থী, অভিভাবক, কর্মকর্তা ও কর্মচারীদের মধ্যে আনন্দঘধন পরিবেশ ছড়িয়ে পড়ে। শুধু মেডিকেল না, ইঞ্জিনিয়ারিং সহ দেশের নাম করা একাধিক বিশ্ববিদ্যালয়ে এখানকার শিক্ষার্থীরা বরাবরের মতো এবারও ভর্তির সুযোগ পাবে বলে- সহকারী অধ্যাপক জয়দেব ঘোষ আশাবাদ ব্যক্ত করেন। এব্যপারে সংশ্লিষ্ট তালা সরকারি কলেজ’র অধ্যক্ষ প্রফেসর মনি মোহন মন্ডল মেডিকেল ভর্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীদের অভিনন্দনসহ তাঁদের সাফল্য কামনা করে বলেন, দক্ষিন বঙ্গের ঐতিহ্যবাহী শিক্ষা প্রতিষ্ঠান- তালা সরকারি কলেজ বরাবর-ই তার ফলাফলের সাফল্য বজায় রেখেছে। মেডিকেল, ইঞ্জিনিয়ারিং ও বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয় সহ উচ্চ শিক্ষায় তালা সরকারি কলেজ পাইনিয়ার হিসেবে অত্র এলাকায় ভূমিকা পালন করে। তিনি বলেন, নানান প্রতিকূলতা সত্বেও অত্র এলাকার কৃষক ও সাধারন মানুষের সন্তানেরা যাতে উচ্চ শিক্ষার পাশাপাশি দেশ গঠনে ভূমিকা রাখতে পারে তার জন্য কলেজের শিক্ষক, কর্মকর্তা ও কর্মচারীরা সংশ্লিষ্ট অভিভাবকদের সাথে সমন্বয় করে নিরলস পরিশ্রম করে যাচ্ছে। অধ্যক্ষ প্রফেসর মনি মোহন মন্ডল কলেজের এই সাফল্য অর্জনের ধারাবাহিকতা অব্যাহত রাখা সহ কলেজের সার্বিক উন্নয়নের জন্য সকলের সহযোগীতা কামনা করেছেন।